মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

ভাষা ও সংস্কৃতি

কোলাগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের জন গনের স্বভাব চরিত্র ভালো। সকল ধর্মের লোক বসবাস করে। সবাই নিজ নিজ ধর্ম পালন ভাল। একে ওপরের বিপদে আপদে এগিয়া আসে। কোলাগাঁও ইউনিয়নের শিক্ষিত লোকের সংখ্যা  বেশী।  এখানে ভাষার মূল বৈশিষ্ট্য বাংলাদেশের অন্যান্য উপজেলার মতই, তবুও কিছুটা বৈচিত্র্য খুঁজে পাওয়া যায়। যেমন কথ্য ভাষায় মহাপ্রাণধ্বনি অনেকাংশে অনুপস্থিত, অর্থাৎ ভাষা সহজীকরণের প্রবণতা রয়েছে। আঞ্চলিক ভাষার সাথে সন্নিহিত  ইউনিয়নের আচার-আচরণ, খাদ্যাভ্যাস, ভাষা, সংস্কৃতিতে ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে । এই ইউনিয়নের লোকজন আবার চট্টগ্রাম আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলতে বেশ অব্যস্থ । অত্র ইউনিয়নের জনগণ খুবই বন্ধুত্য পরায়ণ এবং খুবই শান্ত সৃষ্ট ।

কোলাগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের জন গনের স্বভাব চরিত্র ভালো। সকল ধর্মের লোক বসবাস করে। সবাই নিজ নিজ ধর্ম পালন ভাল। একে ওপরের বিপদে আপদে এগিয়া আসে। কোলাগাঁও ইউনিয়নের শিক্ষিত লোকের সংখ্যা  বেশী।  এখানে ভাষার মূল বৈশিষ্ট্য বাংলাদেশের অন্যান্য উপজেলার মতই, তবুও কিছুটা বৈচিত্র্য খুঁজে পাওয়া যায়। যেমন কথ্য ভাষায় মহাপ্রাণধ্বনি অনেকাংশে অনুপস্থিত, অর্থাৎ ভাষা সহজীকরণের প্রবণতা রয়েছে। আঞ্চলিক ভাষার সাথে সন্নিহিত  ইউনিয়নের আচার-আচরণ, খাদ্যাভ্যাস, ভাষা, সংস্কৃতিতে ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে । এই ইউনিয়নের লোকজন আবার চট্টগ্রাম আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলতে বেশ অব্যস্থ । অত্র ইউনিয়নের জনগণ খুবই বন্ধুত্য পরায়ণ এবং খুবই শান্ত সৃষ্ট ।

কোলাগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের জন গনের স্বভাব চরিত্র ভালো। সকল ধর্মের লোক বসবাস করে। সবাই নিজ নিজ ধর্ম পালন ভাল। একে ওপরের বিপদে আপদে এগিয়া আসে। কোলাগাঁও ইউনিয়নের শিক্ষিত লোকের সংখ্যা  বেশী।  এখানে ভাষার মূল বৈশিষ্ট্য বাংলাদেশের অন্যান্য উপজেলার মতই, তবুও কিছুটা বৈচিত্র্য খুঁজে পাওয়া যায়। যেমন কথ্য ভাষায় মহাপ্রাণধ্বনি অনেকাংশে অনুপস্থিত, অর্থাৎ ভাষা সহজীকরণের প্রবণতা রয়েছে। আঞ্চলিক ভাষার সাথে সন্নিহিত  ইউনিয়নের আচার-আচরণ, খাদ্যাভ্যাস, ভাষা, সংস্কৃতিতে ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে । এই ইউনিয়নের লোকজন আবার চট্টগ্রাম আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলতে বেশ অব্যস্থ । অত্র ইউনিয়নের জনগণ খুবই বন্ধুত্য পরায়ণ এবং খুবই শান্ত সৃষ্ট ।

কোলাগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের জন গনের স্বভাব চরিত্র ভালো। সকল ধর্মের লোক বসবাস করে। সবাই নিজ নিজ ধর্ম পালন ভাল। একে ওপরের বিপদে আপদে এগিয়া আসে। কোলাগাঁও ইউনিয়নের শিক্ষিত লোকের সংখ্যা  বেশী।  এখানে ভাষার মূল বৈশিষ্ট্য বাংলাদেশের অন্যান্য উপজেলার মতই, তবুও কিছুটা বৈচিত্র্য খুঁজে পাওয়া যায়। যেমন কথ্য ভাষায় মহাপ্রাণধ্বনি অনেকাংশে অনুপস্থিত, অর্থাৎ ভাষা সহজীকরণের প্রবণতা রয়েছে। আঞ্চলিক ভাষার সাথে সন্নিহিত  ইউনিয়নের আচার-আচরণ, খাদ্যাভ্যাস, ভাষা, সংস্কৃতিতে ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে । এই ইউনিয়নের লোকজন আবার চট্টগ্রাম আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলতে বেশ অব্যস্থ । অত্র ইউনিয়নের জনগণ খুবই বন্ধুত্য পরায়ণ এবং খুবই শান্ত সৃষ্ট ।

ছবি


সংযুক্তি



Share with :

Facebook Twitter